“রাষ্ট্রপতি ক্ষমা” নিতে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের ষড়যন্ত্র ফাঁস!

পিবিসি নিউজ: ক্ষমতা ছাড়লে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের জেলে যাওয়ার সম্ভাবনা তীব্রতর হওয়ায় নিজেকে সকল অপরাধের সাজা থেকে মুক্তি পেতে অগ্রিম “প্রেসিডেন্ট পার্ডন” নেয়ার প্রস্তুতি নিচ্ছেন।

তার বিরুদ্ধে চলমান ধর্ষণ মামলা রয়েছে ১৯টি, ট্যাক্স ফ্রডের মামলা রয়েছে, কোম্পানির নামে লোন নিয়ে পরিশোধ না করার মামলা রয়েছে, তার মালিকানাধীন ডেভেলপমেন্ট কোম্পনির জন্য ছোট ছোট কন্ট্রাক্টরদের দিয়ে কাজ করিয়ে পয়সা না দেয়ার মামলা রয়েছে ডজন খানেক। সব মিলিয়ে প্রায় শ’খানেক চলমান মামলায় তার নিশ্চিত সাজা হওয়ার সম্ভাবনা আর তাই তিনি সাজা থেকে মুক্তি পেতে নতুন পদ্ধতি বের করে ফেলেছেন।

রাষ্ট্রপতির ক্ষমতায় অপরাধীকে সাধারণ ক্ষমা দিয়ে সাজা মৌকুফের পদ্ধতি কাজে লাগানোর ব্যাপারে আইনি ফাঁকফোকর খোঁজা শুরু করেছেন বলে সিএনএনকে জানিয়েছেন তারই একজন উপদেষ্টা। সিএনএনের রিপোর্টে বলা হয় প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প ক্ষমতা হস্তান্তরের দু একদিন আগে অর্থাৎ জানুয়ারি ২০ এর সামান্য আগে পদত্যাগ করে ভাইস প্রেসিডেন্ট মাইক পেন্সকে প্রেসিডেন্ট বানিয়ে নিজে সাধারণ ক্ষমা নেয়ার ব্যবস্থা করবেন।

সংবিধানে নিজের অপরাধ থেকে নিজেকে ক্ষমা করা যায়না বলে স্পষ্ট আইন থাকায় তিনি প্রেসিডেন্ট হিসাবে নিজেকে নিজে সাধারণ ক্ষমা করতে পারছেন না, আর তাই আইনের ফাঁকফোকর দিয়ে এটাই তার নতুন আবিষ্কার! ঘটনাটি সিএনএনের মাধ্যমে জানাজানি হয়ে গেলে এখন দেখার বিষয় কত ধূর্ততার সাথে তিনি নিজেকে রক্ষা করতে পারেবেন!  আমেরিকার সংবিধান নিয়ে খেলা করা কি এতটাই সহজ হবে বলে মনে হয়? বাকিটা সময় বলে দেবে।

We will be happy to hear your thoughts

Leave a reply

PBC24