একই পরিবারের ৪ জনকে কুপিয়ে হত্যায় একজনের মৃত্যুদণ্ড

পিবিসি নিউজঃ  একই পরিবারের চার জনকে কুপিয়ে ও জবাই করে হত্যার ঘটনার একমাত্র আসামি নিহত শাহিনুরের ভাই রায়হানুলকে ফাঁসিতে ঝুলিয়ে মৃত্যুদণ্ড কার্যকরের আদেশ দিয়েছেন আদালত।
মঙ্গলবার দুপুরে সিনিয়র জেলা ও দায়রা জজ শেখ মফিজুর রহমান এ আদেশ দেন।
এই রায়ে রাষ্ট্রপক্ষ খুশি হলেও আসামিপক্ষের আইনজীবী ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করে উচ্চ আদালতে আপিল করার কথা জানিয়েছেন।
ঘটনার মাত্র ১১ মাসে ১৮টি কার্যদিবসে ২৮ জন স্বাক্ষীর মধ্যে ১৮ জনের স্বাক্ষ্য গ্রহণ শেষে এই রায় ঘোষণা হল।
দণ্ডপ্রাপ্ত আসামিকে আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে উচ্চ আদালতে আপিল করার নির্দেশনা রয়েছে।
গত বছরের ১৪ অক্টোবর রাতে সাতক্ষীরার কলারোয়া উপজেলার হেলাতলা ইউনিয়নের খলসি গ্রামে মৃত শাহাজান ডাক্তারের ছেলে শাহিনুর, তার স্ত্রী ছাবিনা, শাহিনুরের ছেলে তৃতীয় শ্রেণীর ছাত্র সিয়াম হোসেন ও মেয়ে দ্বিতীয় শ্রেণীর ছাত্রী তাসমিন সুলতানাকে জবাই করে ও কুপিয়ে হত্যা করে। এ ঘটনায় ১৫ অক্টোবর সকালে পুলিশ তাদের নিজ বাড়ি থেকে মরদেহ উদ্ধার করে।
ওইদিন নিহত শাহিনুরের ভাই রায়হানুলকে গোপনে পুলিশ হেফাজতে নেয়া হয়। রাতে নিহতের শাশুড়ি ময়না খাতুন বাদি হয়ে অজ্ঞাতদের আসামি করে কলারোয়া থানায় একটি হত্যা মামলা করেন। দুই দিন পর মামলাটি সিআইডির তদন্তে যায়।
এদিকে, গ্রেফতারকৃত রায়হানুলকে রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। ২১ অক্টোবর জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম বিলাস মন্ডলের আদালতে ১৬৪ ধারার জবানবন্দিতে স্পীডের সঙ্গে ঘুমের ট্যাবলেট খাইয়ে চার জনকে হত্যার দায় স্বীকার করেন রায়হানুল।
এরপর গত বছরের ২৪ নভেম্বর মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা সিআইডি’র পুলিশ পরিদর্শক শফিকুল ইসলাম শুধুমাত্র আসামি রায়হানুলকে অভিযুক্ত করে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করেন। চলতি বছরের ১৪ জানুয়ারি অভিযোগ গঠনের মধ্য দিয়ে এ মামলার বিচার কার্য শুরু হয়।

We will be happy to hear your thoughts

Leave a reply

PBC24
Logo
Shopping cart